Home / অর্থনীতি / ব্যাংকখাতে লুটপাটকারী ‘দুষ্ট লোকেদের’ নাম জানতে চায় বিএনপি

ব্যাংকখাতে লুটপাটকারী ‘দুষ্ট লোকেদের’ নাম জানতে চায় বিএনপি

ad6_3

২ জুলাই, শ্রীনগর নিউজঃ ব্যাংকখাতে লুটপাটকারী অর্থমন্ত্রীর ঘোষিত ‘দুষ্টু লোকদের’ নাম বিএনপি জানতে চায় এবং আগামী প্রকাশে ৭২ ঘণ্টার মধ্যে তাদের নাম প্রকাশ করার আল্টিমেটাম দিয়েছে বিএনপি। বৃহস্পতিবার দুপুরে নয়াপল্টন কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপির মুখপাত্র ড. আসাদুজ্জামান রিপন নিয়মিত ব্রিফিংয়ে অর্থমন্ত্রীর প্রতি এ আল্টিমেটাম দেন। তিনি বলেন, ভোটারবিহীন এই সরকারের আমলে অর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোত ে ব্যাপকভাবে লুটপাট হচ্ছে। এটা আমরা আগেও বলেছি। সরকারের অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত একজন সজ্জন মানুষ, তার ভাষায় দুষ্টু লোকেরা রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক থেকে অর্থ লোপাটের সঙ্গে জড়িত। আমরা জানতে চাই, ওই সমস্ত দুষ্ট লোক কারা, যাদের সঙ্গে আপনি পারছেন না। পদত্যাগ করে দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে পারতেন। এখন মুখ যেহেতু খুলেছেন, ভালো করে মুখ খুলুন। আপনার বয়স হয়েছে, দেশের পক্ষে দেশের অর্থনীতির পক্ষে কথা বলুন। ব্যাংকে যে টাকা জমা হয় তা জনগণের টাকা। বিএনপি জনগণের পক্ষে কথা বলে। ৫৫,০০০ কোটি টাকা ঋণ খেলাপী বেড়েছে। এর মধ্যে ৩৫,০০০ কোটি টাকা অবলোপনকৃত। এটা সরকার প্রকাশ করেনি। যে পরিমাণ টাকা ঋণ খেলাপী হয়েছে, তা দিয়ে তিনটি পদ্মা সেতু করা যেত। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী তিন মাসের আন্দোলনের নেতিবাচক বিষয় বারবার তুলে ধরতে চায়। বিএনপি জ্বালাও- পোড়াও করে না। বিএনপির রাজনীতিতে সহিংসতা সমর্থন করে না। আমরা গণতান্ত্রিক পথে এগিয়ে যেতে চাই। আওয়ামী লীগ যদি গত ছয় বছরের লুটপাট বন্ধ করত, তাহলে জিডিপির হার এখন ৭ শতাংশ হয়ে যেতো। বাংলাদেশকে নিম্ম-মধ্যম আয়ের দেশ হিসেবে উল্লেখ করে বিশ্বব্যাংকের দেয়া বার্ষিক প্রতিবেদন প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এখানে সরকারের কোনো অবদান নেই। জনগণের প্রচেষ্টায়ই এই অর্জন সম্ভব হয়েছে। বর্তমান ক্ষমতাসীন সরকার লুটপাট না করতে তাহলে বাংলাদেশ মধ্যম আয়ের দেশে পৌঁছে যেতো।’ সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নাজিম উদ্দিন আলম, সহ-দফতর সম্পাদক আব্দুল লতিফ জনি, ত্রাণ বিষয়ক সম্পাদক মেহেদি হাসান রুমি প্রমুখ।

প্রতি মুহুর্তের খবর পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *