Home / শিক্ষাঙ্গন / খন্ডকালীন, নন-এমপিও, এমপিও শিক্ষকসহ মাধ্যমিক শিক্ষা জাতীয়করণ সময়ের দাবি।

খন্ডকালীন, নন-এমপিও, এমপিও শিক্ষকসহ মাধ্যমিক শিক্ষা জাতীয়করণ সময়ের দাবি।

সম্পাদকীয়ঃ মাধ্যমিক শিক্ষাকে গতিশীল ও শিক্ষকদের অসামর্থ্য আর্থিক অবস্থার উন্নতি ঘটাতে শিক্ষা ব্যবস্থাকে জাতীয়করণের বিকল্প নেই শিক্ষকদের সমস্যায় রেখে কখনো শিক্ষার মান উন্নয়ন সম্ভব নয়। সবদিক বিবেচনা করে খন্ডকালীন, নন-এমপিও, এবং এমপিও শিক্ষকদের একযোগে সরকারী আওতার অধীনে নেয়ার জোড় দাবি শিক্ষাসমাজের। মানবেতর জীবনযাপনকারী এসব শিক্ষকদের মৌলিক চাহিদা ও সামাজিক মর্যাদা বৃদ্ধির একমাত্র উপায় হল মাধ্যমিক শিক্ষাকে জাতীয়করণ করা। জাতীয়করণের ক্ষেত্রে যদি খন্ডকালীন বা নন-এমপিও শিক্ষকদের বাদ দেয়া হয় তাহলে শিক্ষা ব্যবস্থায় বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হবে। শিক্ষার পরিবেশ নষ্ট সহ লাখ লাখ শিক্ষক বেকার ও মৌলিক চাহিদা পূরণে ব্যর্থ হয়ে পড়বে। দেশের সর্বোচ্চ ডিগ্রিধারী এসব শিক্ষকদের মেধা অলস হয়ে পড়বে। ফলে মেধাকে সঠিক কাজে ব্যবহারে ব্যর্থ হবে দেশ খন্ডকালীন, নন-এমপিও শিক্ষকদের সরকারী আওতার বাইরে রেখে মাধ্যমিক শিক্ষাকে জাতীয়করণ করলে এসব শিক্ষকদের পরিবারগুলো ভরণ পোষণের সমস্যায় পতিত হবে। লাখ লাখ মেধাবীদের কথা বিবেচনা করা সরকারের নৈতিক দায়িত্ব। সেদিক বিবেচনা করে খন্ডকালীন, নন- এমপিও সহ পুরো মাধ্যমিক শিক্ষাকে জাতীয়করণ করা সময়ের দাবি মনে করি।
হাবিবুর রহমান
শিক্ষক, রিপোর্টার ও বিএমইউএ
সভাপতি

প্রতি মুহুর্তের খবর পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *